সোমবার ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ রাত ১০:১৪

নড়িয়ায় জাতীয় বীর কর্ণেল শওকত আলী প্রতিষ্ঠিত মাজেদা হাসপাতালে ফ্রী চিকিৎসা

জুলাই ৭, ২০২৩            

হৃদয়ে শরীয়তপুর ডেক্সঃ

প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার অঙ্গিকার ঘরে ঘরে স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যে শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলায় জাতীয় বীর কর্ণেল শওকত আলী প্রতিষ্ঠিত ডিজিটালাইজড স্বয়ংসম্পূর্ণ মাজেদা হাসপাতালে রোগীদের ফ্রী চিকিৎসা প্রদান করা হয়েছে। শুক্রবার দিনব্যাপী মাজেদা হাসপাতালের চিকিৎসকরা বিভিন্ন রোগীদের ফ্রী চিকিৎসা সেবা প্রদান করেন। পাশাপাশি বিভিন্ন রোগীদের ফিজিওথেরাপি দেয়া হয়। ফ্রী মেডিকেল ক্যাম্প পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন জাতীয় বীর কর্ণেল শওকত আলীর সুযোগ্য পুত্র শরীয়তপুর-২(নড়িয়া-সখিপুর) আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য খালেদ শওকত আলী। তিনি সপ্তাহে চারদিন এ হাসপাতালে বিনামূল্যে রোগীদের সেবা দিয়ে থাকেন। শুক্রবার সকাল থেকে দূর দূরান্ত থেকে রোগীরা বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে নড়িয়ার মাজেদা হাসপাতালে গিয়ে ভীড় জমাতে দেখা যায়। চারটি চেম্বারে একাধিক চিকিৎসক রোগীদের সেবা প্রদান করেন। এসময় ফ্রী চিকিৎসা সেবা পেয়ে অনেক রোগী সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন।

আহমেদ বশির নামে এক রোগী এসেছিলেন মেরুদণ্ডের সমস্যা নিয়ে। ডা. খালেদ শওকত আন্তরিকতার সাথে দীর্ঘক্ষন তার সমস্যার কথা শোনেন এবং তাকে ভালো ভাবে পরীক্ষা নিরিক্ষা করেন।  ডা. খালেদ শওকতের আন্তরিকতায় মুগ্ধ হন আহমেদ বশির।

আহমেদ বশির বলেন, আমি দীর্ঘদিন ধরে মেরুদণ্ডের সমস্যায় ভূগছি। ঢাকায় ডাক্তার দেখিয়েছিলাম। কিছু পরীক্ষা নিরীক্ষা দিয়েছে। রিপোর্ট দেখানোর জন্য ডা. খালেদ শওকতের কাছে এসেছি। তিনি রিপোর্ট দেখে এবং আমার শরীরের কন্ডিশন দেখে বিভিন্ন পরামশ দিয়েছে। কোন ফি নেননি। মাজেদা হাসপাতালে ফ্রী চিকিৎসা সেবা পেয়ে এ অঞ্চলের মানুষ উপকৃত হচ্ছে। আমরা এতে খুশি।

এ বিষয়ে ডা. খালেদ শওকত বলেন, এ অঞ্চলের মানুষ যাতে উন্নত চিকিৎসা সেবা পান সে লক্ষ্যে আমার বাবা জাতীয় বীর কর্ণেল শওকত আলী মাজেদা হাসপাতাল প্রতিষ্ঠা করেছেন। এখানে মাঝে মাঝেই ফ্রী মেডিকেল ক্যাম্প করা হয় যাতে এ অঞ্চলের মানুষ বিনামূল্যে উন্নত চিকিৎসা পান। তারই ধারাবাহিকতায় মাজেদা হাসপাতালের পক্ষ থেকে ফ্রী চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয়।

© Alright Reserved 2021, Hridoye Shariatpur