বুধবার ১৪ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ সকাল ৯:৪০

ভাতিজার হাতে আহত চাচার ১১ দিন পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু

সেপ্টেম্বর ৭, ২০২৩            

গোসাইরহাট প্রতিনিধিঃ

জমি সক্রান্ত বিরোধের জেরে হামলায় আহত হওয়ার এগারোদিন পরে ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থা আনোয়ার হোসেন (৭৪) নামের এক বৃদ্ধর মৃত্যু হয়েছে। ঐ ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছিলেন আরো তিনজন। গত ২৫ আগস্ট বৃহস্পতিবার সকালে শরীয়তপুর জেলার গোসাইরহাট উপজেলার নলমুড়ি ইউনিয়নের চরমনপুরা গ্রামে এঘটনা ঘটে। পরিবার সুত্রে জানা যায়, জমী সংক্রান্ত জেরে হত্যা করা হয় তাকে।

ঐ ঘটনায় ঐদিন নিহতের ছোট ছেলে আজাহার উদ্দিন অভি (২৬) বাদী হয়ে ভাতিজা মহিউদ্দিনকে প্রধান আসামী করে মোট ৬ জন এবং তিনজনকে অজ্ঞাত আসামী করে গোসাইরহাট থানায় একটি মামলা এজাহার দায়ের করেন।

মামলা সুত্রে জানা যায়, গোসাইরহাট থানাধীন নলমুড়ি ইউনিয়নের আনোয়ার হোসেন ও মহিউদ্দিনের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। এ নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে স্থানীয় জনপ্রধিনি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ মীমাংসা করে দেয়। এর রেশ ধরে গত ২৫ আগস্ট আনোয়ার সরদার তার জমিতে ঘর নির্মান করতে গেলে বাধা প্রদান করেন মহিউদ্দিন পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র দিয়ে পিটিয়ে ও কুপিয়ে জখম করে তার এতে ভেঙ্গে যায় তার মাথার খুলি গুরুতর আহত অবস্থায় নিয়ে যাওয়া হয় ঢাকায় এরপরে এগারো দিন চিকিৎসার পর ৫ সেপ্টম্বর মঙ্গলবার রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যায় তিনি।

নিহতের বড় ছেলে এস এম আলাউদ্দিন বলেন, তারা ঢাকায় বসবাস করতেন এমনতবস্থায় তাদের জমি দির্গদিন ভোগ দখল করে আছেন তার চাচাতো ভাই মহিউদ্দিন সহ অন্যান্যরা এইবিষয় স্থানীয় শালিশদের ডেকে জমির সীমানা নির্ধারন করে দেয়। এরপরে ২৫ আগস্ট সকালে ঐ জমিতে ঘর নির্মান করতে গেলে মহিউদ্দিন বাধা প্রদান করে এক পর্যায়ে বহিরাগত লোকজন নিয়ে লোহার রড লাঠি নিয়ে তাদের উপর আতর্কিত হামলা করে এতে তার বাবা আনোয়ার মাথায় রড দিয়ে আঘাত করেন তার ভাতিজা মহিউদ্দিন এবং বেশ কয়েকজন আহত হন।

গত ৫ সেপ্টম্বর সোমবার সন্ধা সাতটার দিকে ঢাকার শেরে ই বাংলা ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরোলজিস্ট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় এরপরে ৬ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ময়না তদন্ত শেষে ঐদিন রাত নয়টায় তার নিজ বাড়িতে জানাজা শেষে দাফন সম্পন্ন করেন।

গোসাইরহাট থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আসলাম সিকদার জানান, জমি নিয়ে বিরোধীদের জেরে সংঘর্ষে একজন চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

© Alright Reserved 2021, Hridoye Shariatpur